আজ ১৮ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ :

শিমুলিয়ায় লঞ্চঘাটের পাশে ভাসমান লাশ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার:
মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার (মাওয়া) শিমুলিয়া ঘাট থেকে আশরাফুল মিঠু (৫৩) নামে এক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। উদ্ধারকৃত লাশটি পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
আজ রোববার (০১ এপ্রিল) সকালে লঞ্চঘাটের কাছে লাশটি ভাসমান অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।
মাওয়া নৌ-পুলিশ জানান, আশরাফুল গত ২৯ এপ্রিল ঢাকা থেকে গ্রামের বাড়ি খুলনার সোনাডাঙ্গায় যাবার উদ্দেশে রওনা দিয়ে নিখোঁজ হয়। শনিবার তাঁর ছেলে লৌহজং থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে।
ডায়েরির সূত্রে ধরে নিহতের পরিচয় নিশ্চিত হওয়া গেছে। লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে। ধারণা করা হচ্ছে, গরমের স্ট্রোক করে পানিতে পড়ে তিনি মারা যেতে পারেন।
এ বিষয়ে মাওয়া নৌপুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (আইসি) আবু তাহের মিয়া জানান, শেখ আশরাফুল আলম নামক এক ব্যক্তির লাশ আমরা পদ্মা নদী থেকে উদ্ধার করেছি। তিনি এর আগে নিখোঁজ হয়েছিলে। এ বিষয়ে তার সন্তান একটি নিখোঁজের জিডি করেছিলেন। পরিবারের কোন অভিযোগ না থাকা মরদেহটি ময়নাতদন্তে প্রেরণ করা হয়নি। পরিবারের কাছে লাশটি হস্তান্তর করা হয়েছে।

এছাড়া এর আগে গত ৩০ এপ্রিল নুসরাত নওরীন নামে একটি ফেসবুক আইডি থেকে তাদের ভাই নিঁখোজ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে স্যোসাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন।
লেখাটি হুবহুব তুলে ধরা হলো।
আমাদের ভাই শেখ আশরাফুল আলম মিটু। ২৯-০৪-২০২২ তারিখে সকাল ০৬:৩০ মিনিটে খুলনার উদ্দেশ্যে ঢাকার সায়েদাবাদ বাস স্ট্যান্ড হতে ফাল্গুনী পরিবহনে রওনা দেন। মাওয়া লঞ্চ ঘাট হতে লঞ্চে উঠলেও কাঠালবাড়ি ফেরিঘাটে লঞ্চ পৌছানোর পর তার আর কোন খবর পাওয়া যায়নি। কিন্তু, তার মালপত্র খুলনায় পৌঁছে যায়। কাউন্টারে যোগাযোগ করা হলেও তারা জানায় যাত্রীর সাথে যোগাযোগ করে তারাও খুজে পায়নি। এই অবস্হায় যদি হারিয়ে যাওয়া ব্যাক্তির কোন খোঁজ পাওয়া যায় আমাদের সাথে যোগাযোগ করার জন্য বিশেষ অনুরোধ জানানো যাচ্ছে।#

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ :