আজ ৪ঠা জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২০শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ :

বার নির্বাচনে আ. লীগ ১০ ও বিএনপি ৪ পদে জয়ী

 

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয় পেয়েছেন আওয়ামী লীগপন্থী আইনজীবীরা। সংস্থাটির নির্বাচন হওয়া ১৪ পদের মধ্যে ১০ পদেই জয় পেয়েছেন তারা। এর মধ্যে সাতটি সাধারণ আসনের মধ্যে চার পদে এবং সাতটি গ্রুপ আসনের ৬ পদে বিজয়ী হয়েছেন সরকার সমর্থকদের সাদা প্যানেল। অন্যদিকে বিএনপি-জামায়াত সমর্থকদের নীল প্যানেল সাধারণ আসনে তিনটি এবং গ্রুপ আসনে একটি পদে জয় লাভ করেছে।

রবিবার (২৯ মে) দিবাগত রাত ৩টার দিকে বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফল ঘোষণা করেন। এর আগে রবিবার বিকাল সাড়ে চারটায় ভোট গণনা শুরু হয়ে রাত পর্যন্ত চলে। জানা গেছে, ঘোষিত ফল শিগগিরই গেজেট নোটিফিকেশনের মাধ্যমেও প্রকাশ করা হবে।

সরকার সমর্থকদের সাদা প্যানেল থেকে সাধারণ আসনে বিজয়ীরা হলেন— অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ সাঈদ আহমেদ রাজা (১৭ হাজার ৪৩৩ ভোট), অ্যাডভোকেট সৈয়দ রেজাউর রহমান (১৭ হাজার ৯৩ ভোট), অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ মোখলেসুর রহমান বাদল (১৬ হাজার ৮৪৪ ভোট), অ্যাডভোকেট মো. রবিউল আলম বুদু (১৫ হাজার ২৭ ভোট)।

এ প্যানেলের গ্রুপ আসনে বিজয়ী ৬ প্রার্থী হলেন— ঢাকা অঞ্চলের আইনজীবী সমিতে (গ্রুপ-এ) আবদুল বাতেন; বৃহত্তর ময়মনসিংহ, টাঙ্গাইল, ফরিদপুর জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ বি) মো. জালাল উদ্দিন খান; বৃহত্তর কুমিল্লা জেলা ও সিলেট জেলা অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ ডি) এ এফ মো. রুহুল আনাম চৌধুরী; বৃহত্তর খুলনা, বরিশাল ও পটুয়াখালী অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ ই) আনিছ উদ্দিন আহমেদ সহিদ; বৃহত্তর রাজশাহী, যশোর ও কুষ্টিয়া অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ এফ) মো. একরামুল হক এবং বৃহত্তর দিনাজপুর, রংপুর, বগুড়া ও পাবনা জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ জি) মো. আব্দুর রহমান বিজয়ী হয়েছেন।

সাধারণ আসনে বিএনপিপন্থীদের বিজয়ী তিন প্রার্থী হলেন— ব্যারিস্টার এ এম মাহবুব উদ্দিন খোকন (১৬ হাজার ৮১১ ভোট), ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল (১৫ হাজার ৯৬৫ ভোট) ও অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন (১৪ হাজার ৭৯৬ ভোট)। এ প্যানেল থেকে গ্রুপ আসনে একমাত্র বিজয়ী প্রার্থী হচ্ছেন বৃহত্তর চট্টগ্রাম ও নোয়াখালী জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ সি) এ এস এম বদরুল আনোয়ার।

 

 

গত ২৫ মে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত সারা দেশের ৯৩ কেন্দ্রের ১৬৪ বুথে একযোগে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। পরে বার কাউন্সিলের এক নোটিশে ২৯ মে ভোট গণনা শেষে ফল ঘোষণা করার কথা জানানো হয়। নির্বাচনে সাধারণ সাতটি আসনে ৩৫ জন প্রার্থী এবং গ্রুপ ভিত্তিক সাত আসনে ২৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। বার কাউন্সিলের ১৫ পদের মধ্যে ১৪টি পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। তবে একটি পদে পদাধিকার বলে অ্যাটর্নি জেনারেল হন বার কাউন্সিল চেয়ারম্যান।

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ :